বিনোদন

জমল না ‘খুদা হাফিজ’ ,দেখার আগে পড়ুন এই রিভিউ

Join our WhatsApp group

Story In short : সামাজিক মতে সমীরের বিয়ে হয় মুসলিম মেয়ে নার্গিস-এর সাথে। দুজনেই আই টি সেক্টরের সাথে যুক্ত। ভালই চলছিল বিবাহিত জীবন। আচমকাই নেমে আসে বিপর্যয়। এবং ঘটনাচক্রে নার্গিসকে যেতে নোমান। সমীর জানতে পারে তার স্ত্রী এয়ারপোর্টে থেকেই নিখোঁজ হয়ে যায়। অবশেষে স্ত্রীকে খোঁজার উদ্দেশ্যে রাতারাতি সমীর পাড়ি দেয় নোমানের উদ্দেশ্যে। সেখানে সে সম্মুখীন হয় নানান বাধা বিপত্তির। এক সময় সে জানতে পারে তার স্ত্রীকে মেরে ফেলা হয়েছে। কিন্তু তার মন তা মানতে নারাজ। সে চালিয়ে যায় খোঁজ…লিখেছেন সৌম্যদীপ গুহ। 

ADVERTISEMENT

Star Cast : বিদ্যুৎ জামাল, অনু কপুর, শিবালিকা ওবেরয়, শিব পন্ডিত, অহনা কুম্রা, ভিপিন শর্মা।

Director : ফারুক কবির

Platform : ডিজনি+হটস্টার

What’s Good : শিবালিকা ওবেরয়-এর স্বল্প উপস্থিতি।

What’s Bad : নায়িকার বিদেশে হারিয়ে যাওয়ার পিছনে যে ঘটনাকে খাঁড়া করা হয়েছে তা বড্ড নড়বড়ে। এর চেয়ে ভাল ঘটনা টিভি শো ক্রাইম পেট্রোলে হয়ে থাকে। পরিচালক সেখান থেকে সাহায্য নিতেই পারত।

Whatch OR Not : দেখুন। সময় কাটান। বিদ্যুৎ জামালকে যে চোখে যে এসেছেন তা ঝেড়ে ফেলে দেখুন।

Script : ডিজনি+হটস্টার যেমন ভাবে খুদা হাফিজ নিয়ে প্রমোশন করছে যেন বিশ্বে এমন সিনেমা আর হয়নি। যাইহোক এটা তাদের কাজ। করুক। তবে পরিচালক ফারুক কবির যে গল্প ফেঁদেছে তা আজকের সময়ে নতুনত্বতার ধারপাশ মাড়ায় না। হিন্দু মুসলিম নিয়ে যে বিষয়টি জোর করে তুলে ধরা হয়েছিল তা পরবর্তীতে বেমালুম ভুলে গিয়েছে। কোথাও তার আর বিন্দুমাত্র ছাপ নেই। নায়িকার হারিয়ে যাওয়াটা ঘটনার চেয়ে ঘটানো হয়েছে বেশি। তাতে না আছে থ্রিল, না আছে সাসপেন্স। বরং অনেকটা একপেশে। গল্পের নায়ক নিজের স্ত্রীকে খুঁজতে গিয়ে যার সাথে পরিচয় ঘটে তা যেন বলিউডের পেটেন্ট নেওয় বিষয়। যুগ যুগ ধরে বিদেশে ট্যাক্সি ড্রাইভার সঙ্গী হয়ে ওঠে এখানেও। অতএব খোঁজ চলে নায়িকার এবং প্রেডিক্টেবল স্থানেই তার দেখা মেলে। সাসপেন্স তৈরি করতে গিয়ে অনেকটা বোকামির পর অবশেষে নায়িকাকে নিয়ে দেশে ফেরে নায়ক

Star Performance : শিবালিকা ওবেরয়-কে সব মিলিয়ে দশ মিনিট সময় দেওয়া হয়েছে অতএব এর মধ্যে তার অভিনয় খুঁজতে যাওয়া নিছক বোকামি। অনু কপুর একজন উঁচু মানের অভিনেতা। অথচ নোমান ট্যাক্সি ড্রাইভার হিসেবে তাকে আটকে রাখার ফলে তাকে অনেকটা খেটেও মন ছুঁতে পারেনি। ভিপিন শর্মার ক্ষেত্রেও তাই। শিব পন্ডিতের উর্দু মেশানো হিন্দি সংলাপ কখন যে শুধুমাত্র হিন্দিতে পরিনত হয়ে তা বিলক্ষণ ধরতে পারা যায়। এবারে আসা যাক বিদ্যুৎ জামাল-এ। একজন অ্যাকশন হিরোর কাছ থেকে অ্যাকশন কেড়ে নিয়ে কার্যত তার মণি হারা ফণি-র মতো অবস্থা। সে ঠিক করবে, কোন সিচুয়েশনে কোন রি-অ্যাকশন দেবে সেটা ঠিক করা জরুরি ছিল। সব মিলিয়ে বিদ্যুৎ জামালের ভক্তদের হতাশ হওয়ার যথেষ্ট কারন বিদ্যমান।

Direction, Edit & Sound : খুদা হাফিজ পরিচালক ফারুক কবির-এর তিন নম্বর ছবি। তাই খানিকটা এক্সপেক্টেশন থাকা দোষের নয়। কিন্তু একজন আপাদমস্তক অ্যাকশন হিরোকে রোম্যান্টিক হিরোতে নিয়ে আসার জন্য যে খাটনির দরকার ছিল তা একফোঁটা দেখা মেলেনি। গল্পের ঘুঁটি এলোমেলো হয়ে গিয়েছে নানান সময়ে। অমর মোহিল-এর মিউজিকের লবন তুলনামূলক কম হওয়ার স্বাদ আসেনি। সন্দীপ ফ্রান্সেস আরো ভাল সম্পাদনা করতে পারে। সব মিলিয়ে ১৩৩ মিনিট আপনার একটি সিনেমা দেখার অভিজ্ঞতা বাড়াতে সক্ষম।

Leave a Reply

Back to top button