রায়গঞ্জ

বিশ্ববিদ্যালয়েও কাটমানি! অভিযোগ ঘিরে উত্তপ্ত রায়গঞ্জ, বিধায়ক-উপাচার্য কোল্ড ওয়ার

বিশ্ববিদ্যালয়েও কাটমানি ! অভিযোগ ঘিরে উত্তপ্ত রায়গঞ্জ, বিধায়ক-উপাচার্য কোল্ড ওয়ার

Bengal Live রায়গঞ্জঃ রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বিরুদ্ধে দূর্নীতির অভিযোগ বিধায়ক মোহিত সেনগুপ্তের। অভিযোগ ভিত্তিহীন দাবি করে পালটা বিধায়ককে নোটিশ পাঠালেন উপাচার্য৷ চারপাশে কাটমানি নিয়ে হল্লাবোলের মাঝেই বিধায়ক ও উপাচার্যের এই দ্বৈরথ নতুন মাত্রা যোগ করল। সব মিলিয়ে সরগরম রায়গঞ্জ৷

বুধবার দুর্নীতি ও কাটমানি নিয়ে জেলার অতিরিক্ত জেলা শাসকের কাছে স্মারকলিপি জমা দেন রায়গঞ্জের বিধায়ক। সেখানেই সাংবাদিকদের সামনে রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে একাধিক দুর্নীতির অভিযোগে সরব হন মোহিত সেনগুপ্ত। বেশ কয়েকজন অধ্যাপক সহ উপাচার্যের বিরুদ্ধেও দুর্নীতির অভিযোগে সরব হন তিনি। এরপরেই বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠক করে পালটা জবাব দেন রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য অনিল ভুঁইমালি।

সাংবাদিক বৈঠকে উপাচার্য বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয় বা উপাচার্যের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ ভিত্তিহীন। আমরা নির্দিষ্ট গাইডলাইন ও আইন মেনেই সমস্ত রকমের কাজ স্বচ্ছভাবে সম্পন্ন করি। বিধায়ক যখন এই অভিযোগ তুলেছেন, তখন তাঁকেই সেই অভিযোগ প্রমাণ করতে হবে। অভিযোগের ব্যাখ্যা ও প্রমাণ চেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে তাঁকে নোটিশ পাঠানো হয়েছে। তিন দিনের মধ্যে বিধায়কের উত্তর না পেলে একজিকিউটিভ কাউন্সিলের সিদ্ধান্ত নিয়ে আমরা কোর্টে যাব। আইনি পদক্ষেপ নেব।”

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে কোনও নোটিশ এখনও পাননি বলে জানিয়েছেন মোহিত সেনগুপ্ত। নোটিশ পেলে প্রমান সহযোগে উত্তরও দেবেন বলে জানিয়েছেন৷ তিনি।

মোহিতবাবু বলেন, “আমাদের কাছে সমস্ত তথ্য-প্রমাণ আছে। উপাচার্য কোর্টে গেলে আমরা সমস্ত তথ্য-প্রমাণ কোর্টেই পেশ করব।”

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button