রাজ্য

মালদায় বিজেপি প্রার্থীকে গুলির ঘটনায় গ্রেপ্তার দলীয় নেতা

বিজেপি প্রার্থীর উপর প্রাণঘাতী হামলার নেপথ্যে কে? এই প্রশ্নের উত্তরই খুঁজছিল পুলিশ। তদন্তে উঠে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য। গ্রেপ্তার বিজেপি নেতা।

 

Bengal Live মালদাঃ বিজেপি প্রার্থীকে গুলির ঘটনায় গ্রেপ্তার দলীয় নেতা। ঘটনাকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য মালদায়। ধৃত বিজেপি নেতার নাম নিতাই মন্ডল। পুরাতন মালদা ব্লকের বিজেপির গ্রামীণ মন্ডল সভাপতি ছিলেন নিতাই মন্ডল বলে জানা গেছে। দোষীদের শাস্তির দাবি মালদা জেলা বিজেপি নেতৃত্বের।

গত ১৮ এপ্রিল রাতে প্রচার সেরে পুরাতন মালদার ঝন্টুমোড় এলাকায় দলীয় কার্যালয়ে কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করছিলেন বিজেপি প্রার্থী গোপাল সাহা। সেই সময় দুষ্কৃতীরা তাঁকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় বলে অভিযোগ। সেদিন রাতেই গুলিবিদ্ধ গোপাল সাহাকে ভর্তি করা হয় মালদা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে। গভীর রাতে অস্ত্রোপচার করে চিকিৎসকেরা তাঁর গলা থেকে একটি গুলি বের করেন। এরপরই ঘটনার তদন্তে নামে মালদা থানার পুলিশ। প্রথমে এই ঘটনায় ৬ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এরপর সাহেব ঘোষ নামে এক যুবককে ঘটনায় যুক্ত থাকার সন্দেহে গ্রেপ্তার করে মালদা থানার পুলিশ। ধৃতকে জিজ্ঞাসাবাদ করে পুলিশ জানতে পারে এই ঘটনার নেপথ্যে রয়েছে নিতাই মন্ডল।

আগামীকাল গণনা, এখনও মেলেনি পোস্টাল ব্যালট,ক্ষোভ তৃণমূল শিক্ষক সংগঠনের

শুক্রবার রাতে নিতাই মন্ডলকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তাঁকে ফাঁসানো হচ্ছে বলে নিতাই মন্ডল অভিযোগ করলেও দলীয় নেতৃত্বের দাবি, আইন আইনের পথেই চলবে। শনিবার ধৃত নিতাই মন্ডল সহ মোট ৮ জনকে মালদা জেলা আদালতে পেশ করে পুলিশ।

এদিকে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নিতাই মন্ডলের প্ররোচনাতেই বিজেপি প্রার্থীর উপর গুলি চালায় দুষ্কৃতীরা। এমনকি গোপাল সাহাকে খুন করার জন্য দুষ্কৃতীদের টাকাও দিয়েছিল নিতাই মন্ডল বলে সূত্রের খবর।

এই ঘটনায় বিজেপির জেলা সভাপতি গোবিন্দ মন্ডল জানিযেছেন, আইন আইনের পথে চলবে। এই ধরনের ঘটনায় যারা দোষী সাব্যস্ত হবে তাদের কঠোর শাস্তির দাবি করেন তিনি। মালদা থানার পুলিশ ঘটনার পূর্ণ তদন্ত শুরু করেছে।

পরীক্ষা ও ভর্তি ফী কমানোর দাবিতে আন্দোলন রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের

Related News

Leave a Reply

Back to top button