রায়গঞ্জ

তৃণমূলের শিক্ষাকর্মী সংগঠনের পদ থেকে অপসারিত তপন নাগ, দায়িত্বে নতুন সভাপতি

দল ও সংগঠন বিরোধী কাজের জন্য সারা বাংলা তৃণমূল শিক্ষাবন্ধু সমিতির রাজ্য নেতৃত্বের নির্দেশে পদ থেকে সরানো হল তপন নাগকে। তাঁর স্থলাভিষিক্ত হলেন রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট।

 

Bengal Live রায়গঞ্জঃ তৃণমূলের শিক্ষাকর্মী সংগঠনে রদবদল। সারা বাংলা তৃণমূল শিক্ষাবন্ধু সমিতির উত্তর দিনাজপুর জেলা সভাপতির পদ থেকে সরানো হল তপন নাগকে। তপনবাবুকে অপসারিত করে ওই পদে বসানো হল বিপ্লব রায়কে। বিপ্লববাবু রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ে সিনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট পদে কর্মরত।

রবিবার সন্ধ্যায় ইটাহারে তৃণমূলের দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিক বৈঠক ডেকে একথা ঘোষণা করেন উত্তর দিনাজপুর জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের চেয়ারম্যান তথা ইটাহারের বিধায়ক অমল আচার্য ও সারা বাংলা তৃণমূল শিক্ষাবন্ধু সমিতির উত্তরবঙ্গের পর্যবেক্ষক গৌরাঙ্গ মন্ডল। এদিন তাঁরাই সংগঠনের তরফে বিপ্লব রায়ের হাতে নতুন সভাপতির দায়িত্ব তুলে দেন।

সমিতির উত্তরবঙ্গ পর্যবেক্ষক গৌরাঙ্গ মন্ডল বলেন, “এক বছর আগে রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষাকর্মী তপন নাগকে সারা বাংলা তৃণমূল শিক্ষাবন্ধু সমিতির উত্তর দিনাজপুর জেলা কমিটির সভাপতি করা হয়েছিল। বিশ্ববিদ্যালয় সহ জেলার প্রতিটি স্কুল ও কলেজে সারা সংগঠনকে শক্তিশালী করার দায়িত্ব ছিল তাঁর উপরে। কিন্তু সেই দায়িত্ব পালন না করে তপন নাগ বেশকিছু দিন ধরে দল ও সংগঠনবিরোধী কাজ করছেন বলে আমাদের কাছে অভিযোগ আসছিল। সেই অভিযোগের সত্যতাও পাওয়া যায়। এছাড়া তিনি কলেজেও নিয়মিত আসেন না।

ব্যক্তিগত কাজ নিয়েই ব্যস্ত থাকেন। বিষটি আমরা রাজ্য কমিটিকে জানিয়েছিলাম। এর পরেই তপন নাগকে সংগঠনের জেলা সভাপতির পদ থেকে অপসারণ করে রায়গঞ্জ বিশ্ব বিদ্যালয়ের সিনিয়র অ্যাসিস্ট্যান্ট বিপ্লব রায়কে দায়িত্বভার দেওয়ার জন্য রাজ্য কমিটি থেকে নির্দেশ আসে। সেই নির্দেশ মেনে আজ বিপ্লব রায়কে নতুন সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হল।

নবুনিযুক্ত সভাপতি বিপ্লব রায় বলেন, “সবেমাত্র দায়িত্ব পেলাম। এবার সংগঠনের সমস্ত সদস্যদের সঙ্গে বসে সংগঠনকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার কর্মসূচি ঠিক করবো। যাতে আমাদের নেত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের হাত শক্ত করার পাশাপাশি উত্তর দিনাজপুর জেলায় সংগঠন আরও মজবুত হয় এবং আগামী বিধানসভা নির্বাচনে তাঁর সৈনিক হয়ে কাজ করতে পারি।”

Related News

Leave a Reply

Back to top button