রাজ্য

বিধায়কের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হেমতাবাদে

Join our WhatsApp group

হেমতাবাদের বিধায়কের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার। ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র চাঞ্চল্য উত্তর দিনাজপুরে। মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

Bengal Live রায়গঞ্জঃ উত্তর দিনাজপুর জেলার হেমতাবাদের বিধায়কের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য হেমতাবাদ থানার বালিয়ামোড় এলাকায়। মৃত বিধায়কের নাম দেবেন্দ্র নাথ রায় ( ৫৯)। বাড়ি থেকে এক কিলোমিটার দূরে একটি বন্ধ দোকানের বারান্দায় তাঁর গলায় ফাঁস লাগানো মৃতদেহ দেখেন সকলে।

পরিবারের অভিযোগ তাঁকে খুন করে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। দোষীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে সরব হয়েছেন মৃতের পরিবার। ঘটনাস্থলে হেমতাবাদ থানার বিশাল পুলিশবাহিনী। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর পাশাপাশি ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হেমতাবাদ থানার পুলিশ।

২০১৬ সালের বিধানসভা নির্বাচনে হেমতাবাদ বিধানসভা কেন্দ্র থেকে বাম-কংগ্রেসের জোট প্রার্থী হিসেবে ভোটে জয়লাভ করে বিধায়ক হয়েছিলেন বিন্দোল গ্রামপঞ্চায়েতের প্রাক্তন প্রধান তথা দীর্ঘদিনের সিপিএম নেতা দেবেন্দ্র নাথ রায়। এরপর ২০১৯ সালের লোকসভা ভোটের আগে আচমকাই সিপিএম ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দেন তিনি।

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে হেমতাবাদ বিধানসভা ক্ষেত্রের বালিয়া এলাকার বাসিন্দা বর্তমান বিজেপি বিধায়ক দেবেন্দ্র নাথ বাবু রাত ৯ টা নাগাদ বালিয়ামোড়ে চায়ের দোকান থেকে গল্পগুজব করে বাড়িতে যান। দেবেন বাবুর ভাইঝি জানিয়েছেন, রাত ১ lটা নাগাদ কে বা কাহারা তাঁকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। তারপর আর বাড়ি ফেরেননি তিনি। সোমবার সকালে বাড়ি থেকে প্রায় এক কিলোমিটার দূরে বালিয়ামোড় এলাকায় একটি বন্ধ দোকানের বারান্দায় বিধায়ক দেবেন্দ্র নাথ রায়ের ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখতে পান স্থানীয় বাসিন্দারা।

খবর দেওয়া হয় হেমতাবাদ থানার পুলিশকে। ছুটে আসে হেমতাবাদ থানার বিশাল পুলিশবাহিনী। বিধায়কের এভাবে অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে হেমতাবাদ থানার পুলিশ।

Related News

Leave a Reply

Back to top button