রায়গঞ্জ

ইটাহারে প্রয়াত বর্ষীয়ান তৃণমূল নেতা, শোকের ছায়া রাজনৈতিক মহলে

প্রিয় নেতার আকস্মিক মৃত্যুতে শোকবিহ্বল কর্মীরা। ভোটের প্রচারে দিনরাত এক করে এই বয়সেও ছুটে বেড়িয়েছেন। কিন্তু নির্বাচনের ফলটা দেখে যেতে পারলেন না। প্রয়াত নেতার মৃত্যু মানতে পারছেন না এবারের তৃণমূল প্রার্থী মোশারফ হুসেন।

 

Bengal Live ইটাহারঃ প্রয়াত হলেন ইটাহারের বর্ষীয়ান তৃণমূল কংগ্রেস নেতা নাজমুল হোসেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৭০ বছর। তাঁর মৃত্যুতে শীকের ছায়া নেমেছে ইটাহারের রাজনৈতিক মহলে। সাধারণ নাগরিকদের মধ্যেও শোকের ছায়া। তিনি ইটাহার ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের চেয়ারম্যান ছিলেন। শনিবার দুপুরে বাড়িতেই হৃদরোগে আক্রান্ত হন তিনি। এর পর তড়িঘড়ি রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসিকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

খবর পেয়েই এদিন রায়গঞ্জ হাসপাতালে ছুটে ইটাহারের যান তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী মোশারফ হুসেন সহ অন্যান্য তৃণমূল নেতৃত্ব। মৃতদেহ ইটাহারে পোরষার বাড়িতে আনার পর এদিন বিকেলে স্থানীয় বাসিন্দারা প্রিয় নেতাকে শেষ দেখা দেখতে যান। পোরষার বাড়িতে তাঁর মরদেহ কিছুক্ষণ শায়িত রাখার পর গ্রামের বাড়ি ঘেরাতে নিয়ে যাওয়া হয়।

সত্তরের দশকের শেষ দিকে প্রথম রাজনীতিতে আসেন নাজমুল হোসেন। ডাঃ জয়নাল আবেদিনের হাত ধরে তিনি ইটাহার ব্লকের কংগ্রেস নেতা হয়ে ওঠেন। আশির দশকে ইটাহার পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি পদে ছিলেন। দীর্ঘদিন ব্লক কংগ্রেস সভাপতির পদও সামলেছেন। ২০১১ সালে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পর কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে নাম লেখান নাজমুল। আজ রাত সাড়ে ৯ টায় গ্রামের বাড়ি ঘেরাতে তাঁকে মাটি দেওয়া হবে।

Related News

Leave a Reply

Back to top button